০৬:০৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪

গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে একই পরিবারের ৪ জন দগ্ধ

ঢাকার ধামরাইয়ে পৌর এলাকার মোকামটোলায় গ্যাস সিলিন্ডারের লিকেজ থেকে বিস্ফোরণে একই পরিবারের চার জন দগ্ধ হয়েছের। তাদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে।
বুধবার (২৭ মার্চ) সকালে ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্ল্যাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে দগ্ধ চার জনকে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে।
দগ্ধরা হলেন নুরুল ইসলাম (৫৫), তার স্ত্রী সুফিয়া বেগম (৫০), মেয়ে গণবিশ্ববিদ্যালয়ের এমবিবিএসের শিক্ষার্থী নিশরাত জাহান সাথী (২১) ও ছেলে এইচএসসি পরীক্ষার্থী আল হাদী সোহাগ (১৮)।

বিষয়টি নিশ্চিত করে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্ল্যাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের আবাসিক চিকিৎসক মো. তরিকুল ইসলাম জানান, ধামরাই থেকে দগ্ধ অবস্থায় চার জনকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে নিয়ে আসে। তাদের মধ্যে
নুরুল ইসলাম ৪৮ শতাংশ, সুফিয়া বেগম ৮০ শতাংশ, সোহাগ হোসেন ৩৮ শতাংশ ও নিশরাত জাহান সাথী ১৬ শতাংশ দগ্ধ হয়েছেন।

ধামরাই ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের ইনচার্জ সোহেল রানা বলেন, “খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। তবে ততক্ষণে দগ্ধদের হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, লিকেজ থেকে তিন কক্ষের ফ্ল্যাটটিতে গ্যাস জমে ছিল। ভোরের দিকে রান্না করতে উঠে আগুন জ্বালাতেই সেই গ্যাস থেকে তিনটি কক্ষেই আগুন লেগে যায়।”

ধামরাই থানার সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) হুমায়ুন কবীর বলেন, রাত সাড়ে ৩টার দিকে ধামরাই পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের মোকামটোলা এলাকার প্রবাসী ইব্রাহিম হোসেনের চার তলা ভবনের নিচ তলার একটি ফ্ল্যাটে গ্যাস সিলিন্ডারের লিকেজ থেকে বিস্ফোরণ হয়। পরে পার্শ্ববর্তী একটি জায়গা থেকে পানি দিয়ে আগুন নেভান স্থানীয়রা। এরপরে আগুনে দগ্ধ চার জনকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্ল্যাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে পাঠিয়েছে।

বিজনেস বাংলাদেশ/বিএইচ

জনপ্রিয়

গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে একই পরিবারের ৪ জন দগ্ধ

প্রকাশিত : ০৬:০২:১১ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৭ মার্চ ২০২৪

ঢাকার ধামরাইয়ে পৌর এলাকার মোকামটোলায় গ্যাস সিলিন্ডারের লিকেজ থেকে বিস্ফোরণে একই পরিবারের চার জন দগ্ধ হয়েছের। তাদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে।
বুধবার (২৭ মার্চ) সকালে ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্ল্যাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে দগ্ধ চার জনকে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে।
দগ্ধরা হলেন নুরুল ইসলাম (৫৫), তার স্ত্রী সুফিয়া বেগম (৫০), মেয়ে গণবিশ্ববিদ্যালয়ের এমবিবিএসের শিক্ষার্থী নিশরাত জাহান সাথী (২১) ও ছেলে এইচএসসি পরীক্ষার্থী আল হাদী সোহাগ (১৮)।

বিষয়টি নিশ্চিত করে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্ল্যাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের আবাসিক চিকিৎসক মো. তরিকুল ইসলাম জানান, ধামরাই থেকে দগ্ধ অবস্থায় চার জনকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে নিয়ে আসে। তাদের মধ্যে
নুরুল ইসলাম ৪৮ শতাংশ, সুফিয়া বেগম ৮০ শতাংশ, সোহাগ হোসেন ৩৮ শতাংশ ও নিশরাত জাহান সাথী ১৬ শতাংশ দগ্ধ হয়েছেন।

ধামরাই ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের ইনচার্জ সোহেল রানা বলেন, “খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। তবে ততক্ষণে দগ্ধদের হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, লিকেজ থেকে তিন কক্ষের ফ্ল্যাটটিতে গ্যাস জমে ছিল। ভোরের দিকে রান্না করতে উঠে আগুন জ্বালাতেই সেই গ্যাস থেকে তিনটি কক্ষেই আগুন লেগে যায়।”

ধামরাই থানার সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) হুমায়ুন কবীর বলেন, রাত সাড়ে ৩টার দিকে ধামরাই পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের মোকামটোলা এলাকার প্রবাসী ইব্রাহিম হোসেনের চার তলা ভবনের নিচ তলার একটি ফ্ল্যাটে গ্যাস সিলিন্ডারের লিকেজ থেকে বিস্ফোরণ হয়। পরে পার্শ্ববর্তী একটি জায়গা থেকে পানি দিয়ে আগুন নেভান স্থানীয়রা। এরপরে আগুনে দগ্ধ চার জনকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্ল্যাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে পাঠিয়েছে।

বিজনেস বাংলাদেশ/বিএইচ