০৪:৫৬ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪

টাঙ্গাইলে ২৩ বছর পর রাজনী‌তিতে ফেরার ইঙ্গিত সা‌বেক প্রতিমন্ত্রী কায়সার চৌধুরীর

টাঙ্গাইলের মধুপু‌র উপ‌জেলা প‌রিষদ নির্বাচ‌নে কর্মীসভার অন‌ুষ্ঠা‌নে রাজনী‌তি‌তে ফেরার ইঙ্গিত দি‌য়ে‌ছেন সা‌বেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী কায়ছার।

শ‌নিবার (৪ মে) সন্ধ‌্যায় মধুপুর পৌরসভার কাঠাল তলা এলাকায় উপ‌জেলা প‌রিষদ নির্বাচ‌নের চেয়ারম‌্যান প্রার্থী ছরোয়ার আলম আবু খাঁর নির্বাচনী কর্মীসভায় প্রধান অ‌তি‌থি হিসে‌বে উপ‌স্থিত থে‌কে তি‌নি পুনরায় রাজনী‌তি‌তে ফেরার আভাস দি‌য়ে‌ছেন।

সা‌বেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী কায়ছার ব‌লেন, আনুষ্ঠা‌নিকভা‌বে রাজনী‌তি থে‌কে দীর্ঘদিন বাইরে থাক‌লেও বঙ্গবন্ধ‌ুর নীতি দর্শনের বাইরে নই। আমি সংস্কৃতিকভা‌বে আওয়ামী ঘ‌রোনার এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমার দিক থে‌কে তি‌নি আমার বড় বো‌নের মত ছি‌লেন আছেন এবং চির‌দিন থাক‌বেন। বাংলার নেত্রী শেখ হা‌সিনার আর্শিবাদ ও নি‌র্দেশে আমি মধুপু‌রে এসে‌ছিলাম। আমার জীব‌নে শ্রেষ্ঠ ঘটনা শ্রেষ্ঠ উপহার মধুপুর। আমি ২৩ বছ‌রেও রাজনী‌তির অঙ্গ‌নে মধুপুর আসি নাই। ত‌বে আজ‌কে এসে‌ছি এই উপ‌স্থি‌তি ম‌নে ক‌রে দেয় এবং ম‌নে প্রাণে উপ‌জেলা চেয়ারম‌্যান প্রার্থী আবু খার বিজয় হোক।

তি‌নি আরো ব‌লেন, আগামীতে টাঙ্গাইলে সৃজনশীল সকল ক‌র্মের সা‌থে যত‌দিন বে‌ঁচে থা‌কি আমি অবশ‌্যই জ‌ড়িত থাক‌বো। বৃহত্তর স্বার্থে সব‌কিছুইতো রাজনী‌তি। আজ‌কে আমার এই কর্মীসভায় উপস্থি‌তি সেটাও রাজনী‌তি। আমি জনগ‌ণের দি‌কে তা‌কি‌য়ে থাক‌ি। মধুপুর যা আমা‌কে দি‌য়ে‌ছে তা সম্পূর্ন অতুলনীয়।

অনুষ্ঠানে উপ‌জেলা প‌রিষ‌দের চেয়ারম‌্যান প্রার্থী ছরোয়ার আলম আবু খাঁর ব‌লেন, আবুল হাসান চৌধুরী মধুপু‌রের সন্তান। তি‌নি মধুপু‌রের দুই দুইবার সংসদ সদস‌্য ছি‌লেন। মধুপু‌রের সংসদ সদস‌্য আব্দুর রাজ্জাক সা‌বেক প্রতিমন্ত্রী কায়ছার চৌধুরী‌কে মধুপু‌র ও তার নিজ বাড়িতে আসতে দেয়‌নি। ত‌বে সে আবার দীর্ঘ ২৩ বছর পর মধুপু‌রের রাজনী‌তি‌তে স‌ক্রিয় হ‌বে।

এরআগে বি‌কে‌লে সা‌বেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী কায়ছার‌কে উপ‌জেলার গাংগাইর এলাকা তা‌কে ফু‌লের শু‌ভেচ্ছা জানা‌নো হয়। প‌রে মোটরসাইকে‌লের শোভাযাত্রায় তা‌কে কর্মীসভাস্থ‌লে নি‌য়ে যাওয়া হয়।

সা‌বেক উপ‌জেলা প‌রিষ‌দের চেয়ারম‌্যান আব্দুল গফুর মন্টুর সভাপ‌তি‌ত্বে অনুষ্ঠা‌নে আরো উপ‌স্থিত ছি‌লেন, সা‌বেক পৌরসভার মেয়র মাস‌ুদ পার‌ভেজ, উপ‌জেলা আওয়ামী লীগ নেতা রা‌সেল আহ‌ম্মেদ প্রমুখ।
কর্মসভায় ১১ টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার ১৫ সহশ্রাধিক নেতাকর্মী অংশ নেয়।

বিজনেস বাংলাদেশ/বিএইচ

ট্যাগ :

টাঙ্গাইলে ২৩ বছর পর রাজনী‌তিতে ফেরার ইঙ্গিত সা‌বেক প্রতিমন্ত্রী কায়সার চৌধুরীর

প্রকাশিত : ০৮:৫৪:৫৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ৪ মে ২০২৪

টাঙ্গাইলের মধুপু‌র উপ‌জেলা প‌রিষদ নির্বাচ‌নে কর্মীসভার অন‌ুষ্ঠা‌নে রাজনী‌তি‌তে ফেরার ইঙ্গিত দি‌য়ে‌ছেন সা‌বেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী কায়ছার।

শ‌নিবার (৪ মে) সন্ধ‌্যায় মধুপুর পৌরসভার কাঠাল তলা এলাকায় উপ‌জেলা প‌রিষদ নির্বাচ‌নের চেয়ারম‌্যান প্রার্থী ছরোয়ার আলম আবু খাঁর নির্বাচনী কর্মীসভায় প্রধান অ‌তি‌থি হিসে‌বে উপ‌স্থিত থে‌কে তি‌নি পুনরায় রাজনী‌তি‌তে ফেরার আভাস দি‌য়ে‌ছেন।

সা‌বেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী কায়ছার ব‌লেন, আনুষ্ঠা‌নিকভা‌বে রাজনী‌তি থে‌কে দীর্ঘদিন বাইরে থাক‌লেও বঙ্গবন্ধ‌ুর নীতি দর্শনের বাইরে নই। আমি সংস্কৃতিকভা‌বে আওয়ামী ঘ‌রোনার এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমার দিক থে‌কে তি‌নি আমার বড় বো‌নের মত ছি‌লেন আছেন এবং চির‌দিন থাক‌বেন। বাংলার নেত্রী শেখ হা‌সিনার আর্শিবাদ ও নি‌র্দেশে আমি মধুপু‌রে এসে‌ছিলাম। আমার জীব‌নে শ্রেষ্ঠ ঘটনা শ্রেষ্ঠ উপহার মধুপুর। আমি ২৩ বছ‌রেও রাজনী‌তির অঙ্গ‌নে মধুপুর আসি নাই। ত‌বে আজ‌কে এসে‌ছি এই উপ‌স্থি‌তি ম‌নে ক‌রে দেয় এবং ম‌নে প্রাণে উপ‌জেলা চেয়ারম‌্যান প্রার্থী আবু খার বিজয় হোক।

তি‌নি আরো ব‌লেন, আগামীতে টাঙ্গাইলে সৃজনশীল সকল ক‌র্মের সা‌থে যত‌দিন বে‌ঁচে থা‌কি আমি অবশ‌্যই জ‌ড়িত থাক‌বো। বৃহত্তর স্বার্থে সব‌কিছুইতো রাজনী‌তি। আজ‌কে আমার এই কর্মীসভায় উপস্থি‌তি সেটাও রাজনী‌তি। আমি জনগ‌ণের দি‌কে তা‌কি‌য়ে থাক‌ি। মধুপুর যা আমা‌কে দি‌য়ে‌ছে তা সম্পূর্ন অতুলনীয়।

অনুষ্ঠানে উপ‌জেলা প‌রিষ‌দের চেয়ারম‌্যান প্রার্থী ছরোয়ার আলম আবু খাঁর ব‌লেন, আবুল হাসান চৌধুরী মধুপু‌রের সন্তান। তি‌নি মধুপু‌রের দুই দুইবার সংসদ সদস‌্য ছি‌লেন। মধুপু‌রের সংসদ সদস‌্য আব্দুর রাজ্জাক সা‌বেক প্রতিমন্ত্রী কায়ছার চৌধুরী‌কে মধুপু‌র ও তার নিজ বাড়িতে আসতে দেয়‌নি। ত‌বে সে আবার দীর্ঘ ২৩ বছর পর মধুপু‌রের রাজনী‌তি‌তে স‌ক্রিয় হ‌বে।

এরআগে বি‌কে‌লে সা‌বেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী কায়ছার‌কে উপ‌জেলার গাংগাইর এলাকা তা‌কে ফু‌লের শু‌ভেচ্ছা জানা‌নো হয়। প‌রে মোটরসাইকে‌লের শোভাযাত্রায় তা‌কে কর্মীসভাস্থ‌লে নি‌য়ে যাওয়া হয়।

সা‌বেক উপ‌জেলা প‌রিষ‌দের চেয়ারম‌্যান আব্দুল গফুর মন্টুর সভাপ‌তি‌ত্বে অনুষ্ঠা‌নে আরো উপ‌স্থিত ছি‌লেন, সা‌বেক পৌরসভার মেয়র মাস‌ুদ পার‌ভেজ, উপ‌জেলা আওয়ামী লীগ নেতা রা‌সেল আহ‌ম্মেদ প্রমুখ।
কর্মসভায় ১১ টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার ১৫ সহশ্রাধিক নেতাকর্মী অংশ নেয়।

বিজনেস বাংলাদেশ/বিএইচ