০৪:১৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪

আরইউজে সভাপতিকে হত্যার চেষ্টায় গ্রেফতার ১

রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের (আরইউজে) সভাপতি কাজী শাহেদকে আগ্নেয়াস্ত্র দিয়ে হত্যার চেষ্টা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। রবিবার রাত ১২টার দিকে রাজশাহী মহানগরীর অলোকার মোড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় এসএম আবদুল কাজিম ওরফে বাবু নামের ওই হামলাকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তার বিরুদ্ধে নগরীর বোয়ালিয়া থানায় একটি মামলা করেছেন সাংবাদিক কাজী শাহেদ।

সোমবার সকালে গ্রেফতার বাবুকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ।

সাংবাদিক কাজী শাহেদ জানান, ঘটনার সময় তিনি অলোকার মোড় থেকে তার এক আত্মীয়ের সঙ্গে মোটরসাইকেলে বাসায় ফিরছিলেন। এ সময় পেছন থেকে পিস্তল হাতে নিয়ে তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে ধাওয়া করে বাবুসহ তার এক সহযোগী।

বিষয়টি টের পেয়ে শাহেদ তার বাড়ির কাছে গিয়ে নগর পুলিশের কর্মকর্তাদের ঘটনাটি জানান। এরপর পুলিশ গিয়ে বাবুকে আটক করে। তবে তার সহযোগী অপর একজন পালিয়ে যায়। পরে কাজী শাহেদ বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন বলে জানান বোয়ালিয়া থানার ওসি আমান উল্লাহ।

এদিকে সাংবাদিক শাহেদকে হত্যাচেষ্টার প্রতিবাদে ফুঁসে উঠেছে রাজশাহীর সাংবাদিক সমাজ। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে উঠেছে প্রতিবাদের ঝড়। তারা সবাই হামলাকারীর কঠোর শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

ট্যাগ :
জনপ্রিয়

ইসরায়েলকে সতর্ক করল হোয়াইট হাউজ

আরইউজে সভাপতিকে হত্যার চেষ্টায় গ্রেফতার ১

প্রকাশিত : ০১:০৮:৪৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩০ অক্টোবর ২০১৭

রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের (আরইউজে) সভাপতি কাজী শাহেদকে আগ্নেয়াস্ত্র দিয়ে হত্যার চেষ্টা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। রবিবার রাত ১২টার দিকে রাজশাহী মহানগরীর অলোকার মোড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় এসএম আবদুল কাজিম ওরফে বাবু নামের ওই হামলাকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তার বিরুদ্ধে নগরীর বোয়ালিয়া থানায় একটি মামলা করেছেন সাংবাদিক কাজী শাহেদ।

সোমবার সকালে গ্রেফতার বাবুকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ।

সাংবাদিক কাজী শাহেদ জানান, ঘটনার সময় তিনি অলোকার মোড় থেকে তার এক আত্মীয়ের সঙ্গে মোটরসাইকেলে বাসায় ফিরছিলেন। এ সময় পেছন থেকে পিস্তল হাতে নিয়ে তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে ধাওয়া করে বাবুসহ তার এক সহযোগী।

বিষয়টি টের পেয়ে শাহেদ তার বাড়ির কাছে গিয়ে নগর পুলিশের কর্মকর্তাদের ঘটনাটি জানান। এরপর পুলিশ গিয়ে বাবুকে আটক করে। তবে তার সহযোগী অপর একজন পালিয়ে যায়। পরে কাজী শাহেদ বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন বলে জানান বোয়ালিয়া থানার ওসি আমান উল্লাহ।

এদিকে সাংবাদিক শাহেদকে হত্যাচেষ্টার প্রতিবাদে ফুঁসে উঠেছে রাজশাহীর সাংবাদিক সমাজ। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে উঠেছে প্রতিবাদের ঝড়। তারা সবাই হামলাকারীর কঠোর শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।