০১:৩৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪

বিশ্বে ৩০তম ক্ষমতাধর নারী শেখ হাসিনা

বিশ্বের ক্ষমতাধর ১০০ নারীর তালিকায় ৩০তম অবস্থানে আছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সাময়িকী ফোর্বস বুধবার এ তালিকা করেছে। এই সাময়িকীর গত বছরের করা তালিকায় তিনি ছিলেন ৩৬তম অবস্থানে।

ফোর্বসের নতুন এই তালিকায় ক্ষমতাধর ১০০ নারীর পাশাপাশি বিশ্বের রাজনীতিতে সবচেয়ে ক্ষমতাধর ২১ জনের নাম স্থান পেয়েছে। এবার শেখ হাসিনাকে ‘লেডি অব ঢাকা’ আখ্যায়িত করে ফোর্বসে বলা হয়েছে, মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের সহায়তার অঙ্গীকার করেছেন শেখ হাসিনা এবং তাদের জন্য ২০০০ একর জমি বরাদ্দ দিয়েছেন। যা মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সেলর আউং সান সুচির অবস্থানের স্পষ্ট বিপরীত।

গত বছর তালিকায় ২৬ নম্বর অবস্থানে থাকা সুচি এবার ৩৩তম। আর ক্ষমতাধর ১০০ নারীর শীর্ষে আছেন জার্মানির চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল। তিনি টানা সাত বছর ধরে শীর্ষে আছেন এবং তালিকায় আছেন ১২ বছর ধরে। যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে দ্বিতীয়, যুক্তরাষ্ট্রের বিল ও মেলিন্ডা গেটস ফাউন্ডেশনের কোচেয়ার মেলিন্ডা গেটস তৃতীয়, ফেসবুকের সেরিল স্যান্ডবার্গ চতুর্থ ও জেনারেল মটরর্সের প্রধান নির্বাহী মেরি ব্যারা পঞ্চম অবস্থানে আছেন।

উল্লেখ্য, ১০০ জনের তালিকায় ফার্স্ট লেডি থেকে শুরু করে আছেন আন্তর্জাতিক আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও বিভিন্ন শিল্পপ্রতিষ্ঠানের শীর্ষ কর্মকর্তারা। বিনোদন-জগতের ব্যক্তিরাও বাদ পড়েননি এ তালিকা থেকে।

ট্যাগ :
জনপ্রিয়

বিশ্বে ৩০তম ক্ষমতাধর নারী শেখ হাসিনা

প্রকাশিত : ১২:২০:২৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২ নভেম্বর ২০১৭

বিশ্বের ক্ষমতাধর ১০০ নারীর তালিকায় ৩০তম অবস্থানে আছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সাময়িকী ফোর্বস বুধবার এ তালিকা করেছে। এই সাময়িকীর গত বছরের করা তালিকায় তিনি ছিলেন ৩৬তম অবস্থানে।

ফোর্বসের নতুন এই তালিকায় ক্ষমতাধর ১০০ নারীর পাশাপাশি বিশ্বের রাজনীতিতে সবচেয়ে ক্ষমতাধর ২১ জনের নাম স্থান পেয়েছে। এবার শেখ হাসিনাকে ‘লেডি অব ঢাকা’ আখ্যায়িত করে ফোর্বসে বলা হয়েছে, মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের সহায়তার অঙ্গীকার করেছেন শেখ হাসিনা এবং তাদের জন্য ২০০০ একর জমি বরাদ্দ দিয়েছেন। যা মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সেলর আউং সান সুচির অবস্থানের স্পষ্ট বিপরীত।

গত বছর তালিকায় ২৬ নম্বর অবস্থানে থাকা সুচি এবার ৩৩তম। আর ক্ষমতাধর ১০০ নারীর শীর্ষে আছেন জার্মানির চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল। তিনি টানা সাত বছর ধরে শীর্ষে আছেন এবং তালিকায় আছেন ১২ বছর ধরে। যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে দ্বিতীয়, যুক্তরাষ্ট্রের বিল ও মেলিন্ডা গেটস ফাউন্ডেশনের কোচেয়ার মেলিন্ডা গেটস তৃতীয়, ফেসবুকের সেরিল স্যান্ডবার্গ চতুর্থ ও জেনারেল মটরর্সের প্রধান নির্বাহী মেরি ব্যারা পঞ্চম অবস্থানে আছেন।

উল্লেখ্য, ১০০ জনের তালিকায় ফার্স্ট লেডি থেকে শুরু করে আছেন আন্তর্জাতিক আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও বিভিন্ন শিল্পপ্রতিষ্ঠানের শীর্ষ কর্মকর্তারা। বিনোদন-জগতের ব্যক্তিরাও বাদ পড়েননি এ তালিকা থেকে।