০১:০৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

কিম জং সম্পর্কে আবারো তির্যক মন্তব্য করলেন ট্রাম্প

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প আবারো উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং আন সম্পর্কে তির্যক মন্তব্য করেছেন।

ট্রাম্প এক টুইটে বলেছেন, উত্তর কোরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণারয় যদিও তাকে ‘বুড়ো’ বলেছে কিন্তু তিনি কখনোই কিম জং আনকে ‘বেঁটে এবং মোটা’ বলবেন না।

ট্রাম্পের এশিয়া সফরের সমালোচনা করে উত্তর কোরিয়া বলেছে, এটি ‘এক যুদ্ধবাজের সফর’ এবং তারা আবারও মার্কিন প্রেসিডেন্টকে ‘ডোটার্ড’ বা ‘বুড়ো হাবড়া’ বলে সম্বোধন করে।

এর পরই ট্রাম্প আক্রমণাত্মক এক টুইট করেন তবে কথাটা বলেন একটু ঘুরিয়ে।

“কিম জং আন কেন আমাকে ‘বুড়ো’ বলে অপমান করতে চাইছে? আমি তো কখনো তাকে ‘বেঁটে ও মোটা’ বলবো না। আমি তো বরং তার বন্ধু হতে অনেক চেষ্টা করছি – হয়তো কোনো একদিন তা হতেও পারে।”

উত্তর কোরিয়া যুক্তরাষ্ট্রছবির কপিরাইটটুইটার
Image captionট্রাম্পের টুইট

ট্রাম্প যখন এ টুইট করছেন, তথন মার্কিন বিমানবাহী জাহাজগুলো পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরে এক নৌমহড়া চালাচ্ছিল – যা উত্তর কোরিয়াকে শক্তি প্রদর্শনের জন্যই করা হচ্ছে বলে বলা হচ্ছে।

কয়েকটি টুইট বার্তায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট প্রস্তাব করেন দক্ষিণ চীন সাগরের বিভিন্ন এলাকার মালিকানা নিয়ে চীন, ভিয়েতনাম, ফিলিপিন, তাইওয়ান, মালয়েশিয়া ও ব্রুনেই-এর মধ্যে যে বিবাদ রয়েছে তাতে তিনি মধ্যস্থতা করতে পারেন।

“আমি খুব ভালো একজন মধ্যস্থতাকারী” – লেখেন ট্রাম্প।

ভিয়েতনামে এ্যাপেক সম্মেলনে এসে তিনি সেদেশের প্রেসিডেন্ট ত্রান দাই কোয়াংকে বলেন, “আমাকে দিয়ে মধ্যস্থতা বা সালিশে দরকার হলে আমাকে জানাবেন।” বিবিসি বাংলা।

ট্যাগ :
জনপ্রিয়

কিম জং সম্পর্কে আবারো তির্যক মন্তব্য করলেন ট্রাম্প

প্রকাশিত : ১০:১১:৫৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১২ নভেম্বর ২০১৭

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প আবারো উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং আন সম্পর্কে তির্যক মন্তব্য করেছেন।

ট্রাম্প এক টুইটে বলেছেন, উত্তর কোরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণারয় যদিও তাকে ‘বুড়ো’ বলেছে কিন্তু তিনি কখনোই কিম জং আনকে ‘বেঁটে এবং মোটা’ বলবেন না।

ট্রাম্পের এশিয়া সফরের সমালোচনা করে উত্তর কোরিয়া বলেছে, এটি ‘এক যুদ্ধবাজের সফর’ এবং তারা আবারও মার্কিন প্রেসিডেন্টকে ‘ডোটার্ড’ বা ‘বুড়ো হাবড়া’ বলে সম্বোধন করে।

এর পরই ট্রাম্প আক্রমণাত্মক এক টুইট করেন তবে কথাটা বলেন একটু ঘুরিয়ে।

“কিম জং আন কেন আমাকে ‘বুড়ো’ বলে অপমান করতে চাইছে? আমি তো কখনো তাকে ‘বেঁটে ও মোটা’ বলবো না। আমি তো বরং তার বন্ধু হতে অনেক চেষ্টা করছি – হয়তো কোনো একদিন তা হতেও পারে।”

উত্তর কোরিয়া যুক্তরাষ্ট্রছবির কপিরাইটটুইটার
Image captionট্রাম্পের টুইট

ট্রাম্প যখন এ টুইট করছেন, তথন মার্কিন বিমানবাহী জাহাজগুলো পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরে এক নৌমহড়া চালাচ্ছিল – যা উত্তর কোরিয়াকে শক্তি প্রদর্শনের জন্যই করা হচ্ছে বলে বলা হচ্ছে।

কয়েকটি টুইট বার্তায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট প্রস্তাব করেন দক্ষিণ চীন সাগরের বিভিন্ন এলাকার মালিকানা নিয়ে চীন, ভিয়েতনাম, ফিলিপিন, তাইওয়ান, মালয়েশিয়া ও ব্রুনেই-এর মধ্যে যে বিবাদ রয়েছে তাতে তিনি মধ্যস্থতা করতে পারেন।

“আমি খুব ভালো একজন মধ্যস্থতাকারী” – লেখেন ট্রাম্প।

ভিয়েতনামে এ্যাপেক সম্মেলনে এসে তিনি সেদেশের প্রেসিডেন্ট ত্রান দাই কোয়াংকে বলেন, “আমাকে দিয়ে মধ্যস্থতা বা সালিশে দরকার হলে আমাকে জানাবেন।” বিবিসি বাংলা।