০৬:০৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪

‘শিল্পী সমিতিতে খোঁচাখুঁচি হচ্ছে’

আসন্ন চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে সভাপতি পদে নির্বাচন করবেন জনপ্রিয় অভিনেতা মনোয়ার হোসেন ডিপজল।

এ অভিনেতা জানান, কয়েকটি কারণে তিনি আগামী চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে অংশ নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। দাপুটে এই অভিনেতার ভাষ্যমতে, শিল্পী সমিতিতে বেশি খোঁচাখুঁচি হচ্ছে, বেশি রঞ্জিত হওয়া ভালো না।

ডিপজল বলেন, আমি যেহেতু ঘোষণা দিয়েছি শরীর সুস্থ থাকলে ইনশাল্লাহ সভাপতি নির্বাচন করবো। আমার পাশে যারা আছেন তারা থাকবেন। আমার পাশ থেকে সরে যাবেন না।

সভাপতি পদে নির্বাচন করার কারণ হিসেবে ডিপজল বলেন, নির্বাচনের কারণ একটাই বেশি খোঁচাখুঁচি হচ্ছে- উভয় দল। এত রঞ্জিত হওয়া ভালো না। এত দলাদলি কোন্দল না করে সবাইকে একত্রিত করে কিভাবে ফিল্মকে ভালো করা যায় এটা নিয়ে কাজ করা। সভাপতি-সেক্রেটারি নিয়ে বিশাল ঝগড়া। যারা ফেল করে তাগো নিয়া আহে- এগুলো ঠিক না।

ডিপজল আরো বলেন, শিল্পী সমিতিতে নির্বাচিত সদস্যদের বাদ দেওয়া নিয়ে যা ঘটেছে তা কেলেঙ্কারির মতো। বিশেষ করে নির্বাচিত সহ-সভাপতি রুবেল ও কার্যনির্বাহী সদস্য সুচরিতাকে নোটিশ দিয়ে সমিতি থেকে সরানোর বিষয়টি মোটেও উচিত হয়নি।

এদিকে, মুক্তির অপেক্ষায় আছে ডিপজলের ৮ সিনেমা। আসছে ঈদে যেকোনো একটি সিনেমা তিনি মুক্তি দিতে চান। এরপর প্রতিমাসে একটি সিনেমা মুক্তি দেবেন বলে জানান ডিপজল।

বিজনেস বাংলাদেশ/ bh

ট্যাগ :

‘শিল্পী সমিতিতে খোঁচাখুঁচি হচ্ছে’

প্রকাশিত : ০৯:৫৫:১৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ৫ জুন ২০২৩

আসন্ন চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে সভাপতি পদে নির্বাচন করবেন জনপ্রিয় অভিনেতা মনোয়ার হোসেন ডিপজল।

এ অভিনেতা জানান, কয়েকটি কারণে তিনি আগামী চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে অংশ নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। দাপুটে এই অভিনেতার ভাষ্যমতে, শিল্পী সমিতিতে বেশি খোঁচাখুঁচি হচ্ছে, বেশি রঞ্জিত হওয়া ভালো না।

ডিপজল বলেন, আমি যেহেতু ঘোষণা দিয়েছি শরীর সুস্থ থাকলে ইনশাল্লাহ সভাপতি নির্বাচন করবো। আমার পাশে যারা আছেন তারা থাকবেন। আমার পাশ থেকে সরে যাবেন না।

সভাপতি পদে নির্বাচন করার কারণ হিসেবে ডিপজল বলেন, নির্বাচনের কারণ একটাই বেশি খোঁচাখুঁচি হচ্ছে- উভয় দল। এত রঞ্জিত হওয়া ভালো না। এত দলাদলি কোন্দল না করে সবাইকে একত্রিত করে কিভাবে ফিল্মকে ভালো করা যায় এটা নিয়ে কাজ করা। সভাপতি-সেক্রেটারি নিয়ে বিশাল ঝগড়া। যারা ফেল করে তাগো নিয়া আহে- এগুলো ঠিক না।

ডিপজল আরো বলেন, শিল্পী সমিতিতে নির্বাচিত সদস্যদের বাদ দেওয়া নিয়ে যা ঘটেছে তা কেলেঙ্কারির মতো। বিশেষ করে নির্বাচিত সহ-সভাপতি রুবেল ও কার্যনির্বাহী সদস্য সুচরিতাকে নোটিশ দিয়ে সমিতি থেকে সরানোর বিষয়টি মোটেও উচিত হয়নি।

এদিকে, মুক্তির অপেক্ষায় আছে ডিপজলের ৮ সিনেমা। আসছে ঈদে যেকোনো একটি সিনেমা তিনি মুক্তি দিতে চান। এরপর প্রতিমাসে একটি সিনেমা মুক্তি দেবেন বলে জানান ডিপজল।

বিজনেস বাংলাদেশ/ bh