১০:২৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৯ মে ২০২৪

রেলওয়ের ২ তদন্ত কমিটি গঠন, বরখাস্ত ৩

ছবি সংগৃহীত

গাজীপুরে জয়দেবপুর স্টেশনে দাঁড়িয়ে থাকা তেলবাহী ট্রেনের সঙ্গে টাঙ্গাইল কমিউটার ট্রেনের সংঘর্ষের ঘটনায় তিন জনকে বরখাস্ত করা হয়েছে। একই সঙ্গে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ ঘটনাটি খতিয়ে দেখতে দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। তদন্ত কমিটি ও বরখাস্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জয়দেবপুর জংশনের স্টেশন মাস্টার হানিফ মিয়া।

বরখাস্তকৃতরা হলেন- আপগুন্টি স্টেশন মাস্টার মো. হাসেম, পয়েন্টস ম্যান সাদ্দাম হোসেন ও মোস্তাফিজুর রহমান।

রেলওয়ের পক্ষ থেকে সিওপিএস মো. শহীদুল ইসলামকে প্রধান করে ৫ সদস্যের আঞ্চলিক কমিটি করা হয়েছে। রেলেওয়ে ঢাকা বিভাগীয় প্রকৌশলী (সিগন্যাল ও টেলিকমিউনিকেশন) সৌমিক শাওন কবিরকে প্রধান করে পাঁচ সদস্যের আরেকটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে।

জয়দেবপুর স্টেশন মাস্টার হানিফ মিয়া জানান, টাঙ্গাইল কমিউটার ও মালবাহী ট্রেনের সংঘর্ষ হয়েছে। সিগনাল ম্যানের ভুলের কারণে ওই দুর্ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। কমিউটার ট্রেনটিতে যাত্রী ছিল না। এ কারণে হতাহতের সংখ্যা কম হয়েছে। কমিউটার ট্রেনের লোকো মাস্টারসহ (ট্রেনের চালক) চার জন আহত হয়েছেন।

এর আগে, শুক্রবার (৩ মে) সকাল ১০ টা ৫০ মিনিটের দিকে দুর্ঘটনাটি ঘটে। ওই ঘটনায় টাঙ্গাইল কমিউটারের তিনটি বগি দুমড়েমুচড়ে গেছে, এছাড়াও দুটি ট্রেনের ৮টি বগি লাইনচ্যুত হয়। ঢাকা থেকে উদ্ধারকারী ট্রেন এসে মেরামতের কাজ শুরু করেছে। কাজ চলমান থাকলেও দুপুরের দিকে অন্য লাইন দিয়ে ট্রেন চলাচল শুরু হয়েছে।

বিজনেস বাংলাদেশ/DS

রেলওয়ের ২ তদন্ত কমিটি গঠন, বরখাস্ত ৩

প্রকাশিত : ০৫:০৬:০৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৩ মে ২০২৪

গাজীপুরে জয়দেবপুর স্টেশনে দাঁড়িয়ে থাকা তেলবাহী ট্রেনের সঙ্গে টাঙ্গাইল কমিউটার ট্রেনের সংঘর্ষের ঘটনায় তিন জনকে বরখাস্ত করা হয়েছে। একই সঙ্গে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ ঘটনাটি খতিয়ে দেখতে দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। তদন্ত কমিটি ও বরখাস্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জয়দেবপুর জংশনের স্টেশন মাস্টার হানিফ মিয়া।

বরখাস্তকৃতরা হলেন- আপগুন্টি স্টেশন মাস্টার মো. হাসেম, পয়েন্টস ম্যান সাদ্দাম হোসেন ও মোস্তাফিজুর রহমান।

রেলওয়ের পক্ষ থেকে সিওপিএস মো. শহীদুল ইসলামকে প্রধান করে ৫ সদস্যের আঞ্চলিক কমিটি করা হয়েছে। রেলেওয়ে ঢাকা বিভাগীয় প্রকৌশলী (সিগন্যাল ও টেলিকমিউনিকেশন) সৌমিক শাওন কবিরকে প্রধান করে পাঁচ সদস্যের আরেকটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে।

জয়দেবপুর স্টেশন মাস্টার হানিফ মিয়া জানান, টাঙ্গাইল কমিউটার ও মালবাহী ট্রেনের সংঘর্ষ হয়েছে। সিগনাল ম্যানের ভুলের কারণে ওই দুর্ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। কমিউটার ট্রেনটিতে যাত্রী ছিল না। এ কারণে হতাহতের সংখ্যা কম হয়েছে। কমিউটার ট্রেনের লোকো মাস্টারসহ (ট্রেনের চালক) চার জন আহত হয়েছেন।

এর আগে, শুক্রবার (৩ মে) সকাল ১০ টা ৫০ মিনিটের দিকে দুর্ঘটনাটি ঘটে। ওই ঘটনায় টাঙ্গাইল কমিউটারের তিনটি বগি দুমড়েমুচড়ে গেছে, এছাড়াও দুটি ট্রেনের ৮টি বগি লাইনচ্যুত হয়। ঢাকা থেকে উদ্ধারকারী ট্রেন এসে মেরামতের কাজ শুরু করেছে। কাজ চলমান থাকলেও দুপুরের দিকে অন্য লাইন দিয়ে ট্রেন চলাচল শুরু হয়েছে।

বিজনেস বাংলাদেশ/DS