ঢাকা সকাল ৬:৩৫, বুধবার, ১লা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

তজুমদ্দিনে নির্বাচনী সহিংসতায় মারপিট-ভাংচুর, আহত-১৮

ভোলার তজুমদ্দিনে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দোকানপাট ভাংচুর ও মারপিটের ঘটনায় প্রায় ১৮ জন আহত হয়েছে।

শনিবার দিবাগত রাত সাড়ে ৯টায় উপজেলার চাচড়া ইউনিয়নে নৌকার প্্রার্থী আবু তাহের ও বিদ্রোহী প্রার্থী রিয়াদ হোসেন হান্নানের সমর্থকদের মাঝে এ সংঘর্ষ হয়। রাতে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন।

থমথমে পরিস্থিতিতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। চাঁচড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি সামছুল হক মাস্টার জানান, রাত সাড়ে ৯টার দিকে নৌকার প্রার্থী আবু তাহের নির্বাচনী কাজ শেষে বাড়ী যাওয়ার সময় চাচড়া ভোটের ঘর এলাকায় আসলে হান্নান সমর্থকরা অতর্কিত হামলা চালায়।

তারা লোকজনকে মারপিট করে দোকানপাট ভাংচুর ও লুটপাট চালায়। এসময় গ্রামবাসী এগিয়ে এলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ এসে আবু তাহেরের সমর্থকদেরকে উদ্ধার করে। অভিযোগ অস্বীকার করে বিদ্রোহী প্রার্থী রিয়াদ হোসেন হান্নান বলেন, আবু তাহেরের সমর্থকরা আমার দুই কর্মি-সমর্থককে মারপিট করে দোকান ভাংচুর করেছে।

এ নিয়ে চাচড়া ইউনিয়নে উভয় সমর্থকদের মাঝে পরিস্থিতি উত্তাপ্ত হয়। এদিকে মারপিটের ঘটনায় উভয়পক্ষের আহত হয়েছে প্রায় ১৮ জন। এদের মধ্যে গুরুতর আহত মোস্তাফিজ আজাদ,ইব্রাহীম, সেলিম ও ইউসুফ শিকদারকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়া আহত দ্বীপক চন্দ্র, সলেমান, জোটন,শাকিল, বাচ্ছু, আজগর, মোঃ লিটন, লোকমান, মোঃ কামাল, নুরুল্যাহ, ফখরুল, দ্বীন ইসলাম, নুর ইসলাম,আবু কালাম ও আলমঙ্গীরকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। তজুমদ্দিন থানা অফিসার ইন-চার্জ এসএম জিয়াউল হক জানান, কিছুটা উত্তেজনা বিরাজ করলেও পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। এখন পর্যন্ত কোন পক্ষই লিখিত অভিযোগ দেয়নি।

এ বিভাগের আরও সংবাদ