০১:০৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪

‘বাংলাদেশ থেকে নার্স চেয়েছে মালদ্বীপ’

ফাইল ছবি

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও মুজিব শতবর্ষের আনুষ্ঠানিকতায় যোগ দিতে আগামী মাসে ঢাকায় আসছেন মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম মোহাম্মদ সলিহ। ঢাকা সফররত দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল্লাহ শহীদের সঙ্গে বৈঠক করে এ কথা জানিয়েছেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। করোনার টিকাদান কার্যক্রম চালাতে মালদ্বীপ বাংলাদেশ থেকে কিছু নার্স নিতে চেয়েছে বলেও জানান তিনি।

গতকাল দুপুরে রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় মালদ্বীপের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল্লাহ শহীদের সঙ্গে আনুষ্ঠানিক দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। এক ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে চলা এই বৈঠক শেষে অতিথি ভবনের সবুজ লনে যৌথ সংবাদ সম্মেলন করেন দুই পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

এ সময় ড. মোমেন সাংবাদিকদের জানান, মালদ্বীপের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে অনেক বিষয় নিয়ে আলোচনা করে একমত হয়েছি আমরা। মুজিববর্ষ ও স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে প্রতিবেশী দেশটির প্রেসিডেন্টের ঢাকা সফরকে তিনি আনন্দের বিষয় হিসেবে আখ্যায়িত করেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, করোনার টিকাদান কার্যক্রম চালাতে মালদ্বীপ বাংলাদেশ থেকে কিছু নার্স নিতে চেয়েছে। ইতিমধ্যে অনেক চিকিৎসক সেখানে কাজ শুরু করেছেন। একটি সুখবর হলো, দেশটির প্রেসিডেন্ট ঘোষণা দিয়েছেন যে, মালদ্বীপে কাজ করা তাদের দেশের সব শ্রমিক, প্রবাসীসহ সবাইকে বিনামূল্যে কোভিড-১৯ টিকা দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছে তারা। এ জন্য মালদ্বীপ সরকারকে ধন্যবাদ জানান ড. মোমেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ব্যবসা-বাণিজ্য সম্প্রসারণ, যোগাযোগ, পর্যটন, জলবায়ু ও রোহিঙ্গা ইস্যুসহ আঞ্চলিক এবং আন্তর্জাতিক বিষয়ে আলোচনা হয়েছে মালদ্বীপের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে।

বিজনেস বাংলাদেশ/ এস শিকদার

মেঘনা ধনাগোদা সেচ প্রকল্প বেড়ীবাঁধ সড়কে আবারও ছোট বড় গর্তের সৃষ্টি

‘বাংলাদেশ থেকে নার্স চেয়েছে মালদ্বীপ’

প্রকাশিত : ১১:০৪:৪৩ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১০ ফেব্রুয়ারী ২০২১

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও মুজিব শতবর্ষের আনুষ্ঠানিকতায় যোগ দিতে আগামী মাসে ঢাকায় আসছেন মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম মোহাম্মদ সলিহ। ঢাকা সফররত দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল্লাহ শহীদের সঙ্গে বৈঠক করে এ কথা জানিয়েছেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। করোনার টিকাদান কার্যক্রম চালাতে মালদ্বীপ বাংলাদেশ থেকে কিছু নার্স নিতে চেয়েছে বলেও জানান তিনি।

গতকাল দুপুরে রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় মালদ্বীপের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল্লাহ শহীদের সঙ্গে আনুষ্ঠানিক দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। এক ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে চলা এই বৈঠক শেষে অতিথি ভবনের সবুজ লনে যৌথ সংবাদ সম্মেলন করেন দুই পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

এ সময় ড. মোমেন সাংবাদিকদের জানান, মালদ্বীপের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে অনেক বিষয় নিয়ে আলোচনা করে একমত হয়েছি আমরা। মুজিববর্ষ ও স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে প্রতিবেশী দেশটির প্রেসিডেন্টের ঢাকা সফরকে তিনি আনন্দের বিষয় হিসেবে আখ্যায়িত করেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, করোনার টিকাদান কার্যক্রম চালাতে মালদ্বীপ বাংলাদেশ থেকে কিছু নার্স নিতে চেয়েছে। ইতিমধ্যে অনেক চিকিৎসক সেখানে কাজ শুরু করেছেন। একটি সুখবর হলো, দেশটির প্রেসিডেন্ট ঘোষণা দিয়েছেন যে, মালদ্বীপে কাজ করা তাদের দেশের সব শ্রমিক, প্রবাসীসহ সবাইকে বিনামূল্যে কোভিড-১৯ টিকা দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছে তারা। এ জন্য মালদ্বীপ সরকারকে ধন্যবাদ জানান ড. মোমেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ব্যবসা-বাণিজ্য সম্প্রসারণ, যোগাযোগ, পর্যটন, জলবায়ু ও রোহিঙ্গা ইস্যুসহ আঞ্চলিক এবং আন্তর্জাতিক বিষয়ে আলোচনা হয়েছে মালদ্বীপের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে।

বিজনেস বাংলাদেশ/ এস শিকদার