ঢাকা দুপুর ২:০৫, বুধবার, ২৮শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৩ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

‘করোনার তৃতীয় ঢেউ শুরু হয়েছে’

করোনার সংক্রমণ দ্রুত ছড়ানো ডেল্টা ধরনের প্রভাবে বিশ্বব্যাপী করোনার তৃতীয় ঢেউ শুরু হয়ে গেছে বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। আজ বৃহস্পতিবার সুইজার‌ল্যান্ডের জেনেভায় এক সংবাদ সম্মেলনে সংস্থাটির মহাপরিচালক তেদ্রোস আধানম গেব্রিয়েসুস বলেন, ‘দুঃখজনক হলেও সত্য, বিশ্বজুড়ে করোনার তৃতীয় ঢেউ শুরু হয়ে গেছে এবং আমরা বর্তমানে এর প্রাথমিক পর্যায়ে আছি।’

তিনি বলেন, ‘টানা চার সপ্তাহ ধরে বিশ্বে করোনায় দৈনিক আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে। এই ভাইরাসের অতি সংক্রামক ধরন ডেল্টা ইতেমধ্যে ১১১টি দেশে শনাক্ত হয়েছে এবং সামনের দিনগুলোতে এই সংখ্যা আরও বাড়বে।’

কাজের সুবিধার জন্য বিশ্বের দেশসমূহকে ছয়টি প্রশাসনিক অঞ্চলে ভাগ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। গতকাল বুধবার সংস্থাটির মহাপরিচালক আধানম গেব্রিয়েসুস জানান, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার একটি প্রশাসনিক অঞ্চল ব্যতীত বাকি পাঁচ অঞ্চলেই বাড়ছে এ রোগে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা।

গতকাল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বুলেটিনে বলা হয়, কেবল গত সপ্তাহেই বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৩০ লাখ মানুষ এবং একই সময়ে এ রোগে মৃত্যুর সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৫৫ হাজারের কোটা। এ সময় বিশ্বজুড়ে টিকা বণ্টনে অসমতায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন সংস্থাটির মহপারিচালক।

জেনেভায় অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘শুধু টিকার মাধ্যমে এই তৃতীয় ঢেউ মোকাবিলা করা যাবে না। গবেষণায় দেখা গেছে, ডেল্টা ধরন টিকার ডোজকে ফাঁকি দিতে সক্ষম। এ কারণে শুধু টিকার ওপর নির্ভর করে থাকলে এই তৃতীয় ঢেউকে ঠেকানো সম্ভব হবে না।’ এ জন্য যথাযথভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা ও বিধিনিষেধ আরোপের মাধ্যমে জনসমাগম নিয়ন্ত্রণ এবং তার ধরাবাহিকতা বজায় রাখা প্রয়োজন বলে বলে তিনি জানান।

বিজনেস বাংলাদেশ/বিএইচ

এ বিভাগের আরও সংবাদ