১০:২৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ফেনীর ৩টি আসনে ৩৮ প্রার্থী, ২১ জনের মনোনয়ন বৈধ ও বাতিল ১৭ জন

ফেনীর ৩টি আসনে ৩৮ জন প্রার্থীর মধ্যে ২১ জনের মনোনয়ন পত্র বৈধ ও ১৭ জনের মনোনয়ন বাতিল ঘোষণা করেছেন রিটানিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মুছাম্মৎ শাহীনা আক্তার। আজ সোমবার জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই অনুষ্ঠানে এই ঘোষণা দেয়া হয়।

ফেনী-১ আসনে (পরশুরাম ফুলগাজী ও ছাগলনাইয়া) আসনে ১৪ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র দাখিল করেন। এরমধ্যে ৬ জনের মনোনয়ন বৈধ, ৮ জনের বাতিল করা হয়েছে।ফেনী-২ আসনের মনোনয়ন প্রত্যাশী ১০জনের মধ্যে বৈধ ৮ বাতিল ২

ফেনী-২ আসনে ২ জনের মনোনয়পত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে। এ ছাড়া এই আসনে ৮ জন প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র বৈধ ঘোষণা করেন। মনোনয়ন বাতিল হওয়া প্রার্থীরা হলেন, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক জোটের প্রার্থী মাহবুব মোর্শেদ মজুমদার, সতন্ত্র প্রার্থী এ এস এম আনোয়ারুল করীম।

মনোনয়ন বৈধ হলো যাদের তারা হলেন, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী নিজাম উদ্দিন হাজারী, তৃণমুল বিএনপির মনোনীত প্রার্থী আমজাদ হোসেন ভূইয়া সবুজ, জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী খন্দকার নজরুল ইসমাল, বাংলাদেশ ইসলামি ফ্রান্টের মনোনীত প্রার্থী মাওলানা নুরুল ইসলাম, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোটের মনোনীত প্রার্থী মো: নুরুল আমিন ভূইয়া, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের মনোনীত প্রার্থী আবুল হোসেন ও বাংলাদেশ কংগ্রেসের মনোনীত প্রার্থী মো: হোসেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ফেনী জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মুছামৎ শাহিনা আক্তার বলেন, মনোনয়নপত্রে তথ্যের গড়মিলসহ বিভিন্ন কারণে যাচাই-বাছাই শেষে ফেনী-২ আসনে ১০ জন মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে ২ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়। এ ছাড়া এ আসনে ৮ জন প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে।

ফেনী-৩ দাগনভূঞা ও সোনাগাজী, আসনে ১৪ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে ৭ জনের মনোনয়ন বৈধ, ৭ জনের মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে।

ফেনী জেলা প্রশাসক মুছাম্মৎ শাহীনা আক্তার বলেন, আগামী ৫ থেকে ৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত মনোনয়ন বাতিল হওয়া প্রার্থীরা নির্বাচন কমিশনে আপিল করার সুযোগ রয়েছে।

বিজনেস বাংলাদেশ/বিএইচ

ট্যাগ :
জনপ্রিয়

ফেনীর ৩টি আসনে ৩৮ প্রার্থী, ২১ জনের মনোনয়ন বৈধ ও বাতিল ১৭ জন

প্রকাশিত : ০৬:১২:৪৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৫ ডিসেম্বর ২০২৩

ফেনীর ৩টি আসনে ৩৮ জন প্রার্থীর মধ্যে ২১ জনের মনোনয়ন পত্র বৈধ ও ১৭ জনের মনোনয়ন বাতিল ঘোষণা করেছেন রিটানিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মুছাম্মৎ শাহীনা আক্তার। আজ সোমবার জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই অনুষ্ঠানে এই ঘোষণা দেয়া হয়।

ফেনী-১ আসনে (পরশুরাম ফুলগাজী ও ছাগলনাইয়া) আসনে ১৪ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র দাখিল করেন। এরমধ্যে ৬ জনের মনোনয়ন বৈধ, ৮ জনের বাতিল করা হয়েছে।ফেনী-২ আসনের মনোনয়ন প্রত্যাশী ১০জনের মধ্যে বৈধ ৮ বাতিল ২

ফেনী-২ আসনে ২ জনের মনোনয়পত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে। এ ছাড়া এই আসনে ৮ জন প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র বৈধ ঘোষণা করেন। মনোনয়ন বাতিল হওয়া প্রার্থীরা হলেন, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক জোটের প্রার্থী মাহবুব মোর্শেদ মজুমদার, সতন্ত্র প্রার্থী এ এস এম আনোয়ারুল করীম।

মনোনয়ন বৈধ হলো যাদের তারা হলেন, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী নিজাম উদ্দিন হাজারী, তৃণমুল বিএনপির মনোনীত প্রার্থী আমজাদ হোসেন ভূইয়া সবুজ, জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী খন্দকার নজরুল ইসমাল, বাংলাদেশ ইসলামি ফ্রান্টের মনোনীত প্রার্থী মাওলানা নুরুল ইসলাম, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোটের মনোনীত প্রার্থী মো: নুরুল আমিন ভূইয়া, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের মনোনীত প্রার্থী আবুল হোসেন ও বাংলাদেশ কংগ্রেসের মনোনীত প্রার্থী মো: হোসেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ফেনী জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মুছামৎ শাহিনা আক্তার বলেন, মনোনয়নপত্রে তথ্যের গড়মিলসহ বিভিন্ন কারণে যাচাই-বাছাই শেষে ফেনী-২ আসনে ১০ জন মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে ২ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়। এ ছাড়া এ আসনে ৮ জন প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে।

ফেনী-৩ দাগনভূঞা ও সোনাগাজী, আসনে ১৪ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে ৭ জনের মনোনয়ন বৈধ, ৭ জনের মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে।

ফেনী জেলা প্রশাসক মুছাম্মৎ শাহীনা আক্তার বলেন, আগামী ৫ থেকে ৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত মনোনয়ন বাতিল হওয়া প্রার্থীরা নির্বাচন কমিশনে আপিল করার সুযোগ রয়েছে।

বিজনেস বাংলাদেশ/বিএইচ